আজি কুসুম দীপালি জ্বলিছে বনে | Aji kushum dipali joliche bone | গুল বাগিচা | নজরুল সঙ্গীত | কাজী নজরুল ইসলাম

আজি কুসুম দীপালি জ্বলিছে বনে | Aji kushum dipali joliche bone | গুল বাগিচা গ্রন্থটির প্রকাশক গ্রেট ইস্টার্ন লাইব্রেরি। প্রথম সংস্করণ প্রকাশিত হয় ২৭ জুন ১৯৩৩ (১৩৪০ বঙ্গাব্দ) মূল্য এক টাকা।

রাগঃ ভীমপলশ্রী মিশ্র

তালঃ দাদ্‌রা

 

আজি কুসুম দীপালি জ্বলিছে বনে | Aji kushum dipali joliche bone | গুল বাগিচা | নজরুল সঙ্গীত | কাজী নজরুল ইসলাম

 

আজি কুসুম দীপালি জ্বলিছে বনে গানের কথা :

আজি কুসুম-দীপালি জ্বলিছে বনে।
জ্বলে দীপ-শিখা আম্র-মুকুলে
রাঙা পলাশ অশোকে বকুলে,
আসে সে আলোর টানে বন-তল
মৌমাছি প্রজাপতি দলে দল
পুড়ে মরিতে সে রূপ-শিখাতে
প্রাণ সঁপিতে বাসন্তিকাতে;
পরিমল অঞ্জন মাখিয়া নয়নে
হের ঝিমায় আকাশ চাঁদের স্বপনে।।
জ্বলে গগনে তারার দীপালি
আজি ধরাতে আকাশে মিতালি
ধরা চাঁপার গেলাস ভরিয়া
মধু উর্ধ্বে তুলে গো ধরিয়া
পান করিতে সে মধু পরীরা
আসে নেমে কাননে স-শরীরা;
বাজে উৎসব বাঁশি গগনে পবনে
হের ঝিমায় আকাশ চাঁদের স্বপনে।।

 

স্বপ্ন কবিতা | মরুভাস্কর কাব্যগ্রন্থ । কাজী নজরুল ইসলাম
কাজী নজরুল ইসলাম [ Kazi nazrul islam ]

কাজী নজরুল ইসলাম (২৪ মে ১৮৯৯ – ২৯ আগস্ট ১৯৭৬; ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৩০৬ – ১২ ভাদ্র ১৩৮৩ বঙ্গাব্দ) বিংশ শতাব্দীর প্রধান বাঙালি কবি ও সঙ্গীতকার। তার মাত্র ২৩ বৎসরের সাহিত্যিক জীবনে সৃষ্টির যে প্রাচুর্য তা তুলনারহিত। সাহিত্যের নানা শাখায় বিচরণ করলেও তার প্রধান পরিচয় তিনি কবি।তার জীবন শুরু হয়েছিল অকিঞ্চিতকর পরিবেশে। স্কুলের গণ্ডি পার হওয়ার আগেই ১৯১৭ খ্রিষ্টাব্দে তিনি ব্রিটিশ ভারতীয় সেনাবাহিনীতে যোগ দিয়েছিলেন।

মুসলিম পরিবারের সন্তান এবং শৈশবে ইসলামী শিক্ষায় দীক্ষিত হয়েও তিনি বড় হয়েছিলেন একটি ধর্মনিরপেক্ষ সত্তা নিয়ে। একই সঙ্গে তার মধ্যে বিকশিত হয়েছিল একটি বিদ্রোহী সত্তা। ১৯২২ খ্রিষ্টাব্দে ব্রিটিশ সরকার তাকে রাজন্যদ্রোহিতার অপরাধে কারাবন্দী করেছিল।

 

 

AmarNazrul, আমার নজরুল, Logo, Profile, 3334x3334
AmarNazrul, আমার নজরুল,

১৮৯৯ খ্রিষ্টাব্দের ২৪ মে (জ্যৈষ্ঠ ১১, ১৩০৬ বঙ্গাব্দ) ভারতের পশ্চিমবঙ্গের বর্ধমান জেলার আসানসোল মহকুমার চুরুলিয়া গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন কাজী নজরুল ইসলাম।[১] চুরুলিয়া গ্রামটি আসানসোল মহকুমার জামুরিয়া ব্লকে অবস্থিত। পিতামহ কাজী আমিন উল্লাহর পুত্র কাজী ফকির আহমদের দ্বিতীয় স্ত্রী জাহেদা খাতুনের ষষ্ঠ সন্তান তিনি। তার বাবা ফকির আহমদ ছিলেন স্থানীয় মসজিদের ইমাম এবং মাযারের খাদেম।

 

আরও পড়ুন :

মন্তব্য করুন